রবিবার, ২৯ জানুয়ারী ২০২৩, ০৮:৫৩ অপরাহ্ন

এক দশকেরও বেশি সময় পর ভারতে ঢুকছে পাকিস্তানি চলচ্চিত্র

Reporter Name
  • আপডেট টাইম : বুধবার, ২৮ ডিসেম্বর, ২০২২
the-legend-of-maula-jatt-1-20221228123900

এক দশকেরও বেশি সময় পর ভারতের বাজারে ঢুকছে পাকিস্তানি কোনও চলচ্চিত্র। ভারতের বড় পর্দায় মুক্তি পেতে যাওয়া ওই চলচ্চিত্রের নাম ‘দ্য লিজেন্ড অব মওলা জাট’। আগামী শুক্রবার (৩০ ডিসেম্বর) ভারতে বড় পর্দায় চলচ্চিত্রটি মুক্তি পেতে পারে বলে আইএনওএক্সের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন।ভারতীয় বার্তাসংস্থা পিটিআইয়ের বরাত দিয়ে বুধবার (২৮ ডিসেম্বর) এক প্রতিবেদনে এই তথ্য জানিয়েছে পাকিস্তানি সংবাদমাধ্যম দ্য নিউজ ইন্টারন্যাশনাল।

 

প্রতিবেদনে বলা হয়েছে, ফাওয়াদ খান এবং মাহিরা খান অভিনীত পাকিস্তানি চলচ্চিত্র ‘দ্য লিজেন্ড অব মওলা জাট’ আগামী শুক্রবার ভারতে বড় পর্দায় মুক্তি পেতে পারে বলে দেশটির আইএনওএক্সের একজন কর্মকর্তা জানিয়েছেন। এতে করে গত এক দশকেরও বেশি সময়ের মধ্যে সম্ভবত এটিই হবে পাকিস্তানের প্রথম চলচ্চিত্র যা ভারতের প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাচ্ছে।

আইএনওএক্স লেইজার লিমিটেডের প্রধান প্রোগ্রামিং অফিসার রাজেন্দ্র সিং জায়ালা পিটিআইকে বলেছেন, ‘এটি (দ্য লিজেন্ড অব মওলা জাট) পাঞ্জাব রাজ্য এবং দিল্লির বেশ কয়েকটি আইএনওএক্স প্রেক্ষাগৃহে চালানো হবে যেখানে পাঞ্জাবিভাষী লোক রয়েছেন।

দ্য নিউজ ইন্টারন্যাশনাল বলছে, মাল্টিপ্লেক্স চেইন পিভিআর সিনেমাস তার অফিসিয়াল ইনস্টাগ্রাম পেইজে পাকিস্তানি এই চলচ্চিত্র প্রকাশের ঘোষণা দিয়ে একটি পোস্ট শেয়ার করলেও কিছুক্ষণ পরই সেটি মুছে দেয় তারা।

ইনস্টাগ্রাম অ্যাকাউন্টে দেওয়া ওই পোস্টে বলা হয়েছিল, ‘দ্য লিজেন্ড অব মওলা জাট-এর অফিসিয়াল পোস্টার উপস্থাপন করা হচ্ছে! এই শুক্রবার পিভিআরে আসছে চলচ্চিত্রটি।’

সংবাদমাধ্যম বলছে, অ্যাকশন-ভিত্তিক দ্য লিজেন্ড অব মওলা জাট চলচ্চিত্রটি গত ১৩ অক্টোবর পাকিস্তানে মুক্তি পায় এবং এটি ব্যাপক সাড়া ফেলে। মুক্তির পরপরই ১ কোটি মার্কিন ডলার আয় করে সর্বকালের সর্বোচ্চ আয়কারী পাকিস্তানি চলচ্চিত্র হয়ে ওঠে এটি।

অবশ্য বিলাল লাশারি পরিচালিত দ্য লিজেন্ড অব মাওলা জাট চলচ্চিত্রটি ১৯৭৯ সালের কাল্ট ক্লাসিক মৌলা জাট এবং এর রূপান্তর। নির্মাতারা বলেছেন, এটি রিমেক বা সিক্যুয়াল নয়। এর প্রধান দুই চরিত্রে অভিনয় করা তারকা মাহিরা এবং ফাওয়াদ ভারতীয় দর্শকদের কাছে তাদের জনপ্রিয় পাকিস্তানি নাটক হামসফর এবং বলিউডের মাধ্যমে পরিচিত।

ফাওয়াদকে সম্প্রতি সুপারহিরো সিরিজ মিসেস মার্ভেলে দেখা গেছে। এছাড়া খুবসুরাত, কাপুর অ্যান্ড সন্স এবং অ্যায় দিল হ্যায় মুশকিলেও অভিনয় করেছেন তিনি। অন্যদিকে মাহিরা খানকে বলিউড বাদশাহ শাহরুখ খান অভিনীত রইস-এ অভিনয় করতে দেখা গেছে।

এর আগে ভারতে প্রেক্ষাগৃহে মুক্তি পাওয়া শেষ পাকিস্তানি ছবি ছিল মাহিরা অভিনীত বোল। ২০১১ সালে মুক্তি পেয়েছিল সেটি। এরও আগে ২০০৮ সালে নন্দিতা দাস এবং রশিদ ফারুকী অভিনীত রামচাঁদ পাকিস্তানি সিনেমাও দেশটিতে মুক্তি পায়। এছাড়া ২০০৭ সালে খুদা কে লিয়ে সিনেমাও ভারতে মুক্তি পায়। যেটাতে নাসিরুদ্দিন শাহের পাশাপাশি ফাওয়াদও অভিনয় করেছিলেন।

অন্যদিকে পাকিস্তানি চলচ্চিত্রগুলো অবশ্য ভারতের উৎসবে প্রদর্শিত হয়েছে। চলতি বছরের নভেম্বরে, ধর্মশালা আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র উৎসবে সাইম সাদিকের জয়ল্যান্ড প্রদর্শিত হয়। যা ৯৫তম একাডেমি পুরস্কারে আন্তর্জাতিক চলচ্চিত্র বিভাগে পাকিস্তানের প্রতিনিধিত্ব করেছিল।

 

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.

এই ক্যাটাগরীর আরো খবর